মার্চে রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ শুরু

মার্চে রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ শুরু

ঢাকা ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ (গ্লোবটুডেবিডি):  আগামী মার্চ মাসের শেষ দিকে রামপালে কয়লা বিদ্যুৎকেন্দ্রের দুটি ইউনিটের নির্মাণকাজ শুরু হবে। এই দুই ইউনিট থেকে বিদ্যুৎ আসবে ১৩২০ মেগাওয়াট।

রোববার সরকারি সংবাদ সংস্থা বাসসের খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বাসস প্রতিনিধি সরেজমিন প্রকল্প এলাকা পরিদর্শন করে জানান, প্রকল্পের ৯১৫ একর জমির মাটি ভরাটকাজ ইতোমধ্যেই সম্পন্ন হয়েছে।

প্রকল্প এলাকা ঘিরে উঁচু বেষ্টনী দেয়াল, প্রকল্পের ভেতরে বেশিরভাগ কাশবন তৈরি, ৫টি পর্যবেক্ষণ টাওয়ার, অফিস ও আবাসন এবং কর্মকর্তাদের ছোট আবাসন এবং কেয়ারটেকারদের বাসস্থান নির্মাণকাজ সম্পন্ন হয়েছে।

মহাসড়ক থেকে বিদ্যুৎকেন্দ্রের দিকে নতুন ৬ কিলোমিটার সড়ক ধরে শত শত শ্রমিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে কাজের জন্য ছুটছেন। তারা সিমেন্টের ব্লক তৈরি করছেন, ইট, পাথর নামাচ্ছেন এবং জেটি থেকে অন্যান্য নির্মাণ সামগ্রী নামাচ্ছেন।

বিদ্যুৎকেন্দ্রের জন্য মূল প্লান্টের পশ্চিম পাশে পশুর নদীতে দুটি পন্টুন ও জেটি স্থাপন করা হয়েছে।

বাংলাদেশ-ভারত ফ্রেন্ডশিপ পাওয়ার কোম্পানি লি. (পিভিটি) অতিরিক্ত মহাব্যবস্থাপক অরুণ চৌধুরী বাসসকে বলেন, বিদ্যুৎকেন্দ্র ঘিরে নিরাপত্তা দেয়াল কনক্রিটের ব্লক দিয়ে তৈরি হবে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, রামপাল উপজেলার রাজনগর ও গৌরঙ্গা ইউনিয়নের সাপমারী-কাটাখালী এবং কাইগর্দাশকাঠি মৌজার ৯১৫ একর জমির ওপর বাংলাদেশ-ভারত ফ্রেন্ডশিপ পাওয়ার কোম্পানির উদ্যোগে ১৩২০ মেগাওয়াট মৈত্রী সুপার বিদ্যুৎ প্রকল্প নির্মাণে ২০১২ সালের অক্টোবরে বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড (বিপিডিবি) এবং বাংলাদেশ-ভারত ফ্রেন্ডশিপ পাওয়ার কোম্পানি (পিভিটি) লিমিটেড (বিআইএফপিসিএল) সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করে।

বিআইএফপিসিএল’র উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক বিনোদ ভ্যায়ার বাসসকে বলেন, আগামী মাসের শেষনাগাদ মূল বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণের কাজ শুরু হবে।

Share Button
Previous খালেদার সঙ্গে সুইডেনের রাষ্ট্রদূতের বৈঠক
Next কাভার্ডভ্যান চাপায় ৩ নারী নিহত

You might also like

০ Comments

No Comments Yet!

You can be first to comment this post!

Leave a Reply