আপনি প্রশাসনের সঙ্গে আপস করছেন: অ্যাটর্নিকে প্রধান বিচারপতি

আপনি প্রশাসনের সঙ্গে আপস করছেন: অ্যাটর্নিকে প্রধান বিচারপতি

ঢাকা ১৬আগস্ট ২০১৭ (গ্লোবটুডেবিডি): প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমকে উদ্দেশ্য করে বলেন, আপনি নির্বান করবেন বলে শুনেছি। আপনি তো এলাকায় যান। আমি শুনেছি আপনি নির্বাচন করছেন। আপনি প্রশাসনের সঙ্গে কমপ্রোমাইজ করে চলছেন। আমরা তো ইলিশের গন্ধও পাই না।

প্রধান বিচারপতি অ্যাটর্নি জেনারেলকে যখন এইসব কথা বলছিলেন তখন অ্যাটর্নি জেনারেল মাথা ঝাকাচ্ছিলেন এবং মিটি মিটি হাসছিলেন।

ইলিশ প্রসঙ্গে অ্যাটর্নি জেনারেল বলেন, আমার বাড়ি পদ্মা নদীর পাড়ে। এখনো কারেন্ট জাল দিয়ে ইলিশ মাছ ধরা হয়।

আজ সকালে আপিল বিভাগে মোবাইল কোর্ট মামলার শুনানি কালে প্রধান বিচারপতি অ্যাটর্নি জেনারেলকে উদ্দেশ্য এ কথা বলেন। প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বে ছয় বিচারপতির বেঞ্চে এ মামলার শুনানি হয়।

প্রধান বিচারপতি, আমরা আইনের বাইরে বিচার করব না, আইনের অধীনে বিচার করব। মোবাইল কোর্টের বিষয়ে অ্যাটর্নি জেনারেলকে উদ্দেশ্য করে বলেন, যত তাড়াতাড়ি করবেন তা সবার জন্য মঙ্গল।

Previous গণমাধ্যমের সঙ্গে ইসির সংলাপ শুরু
Next মেয়র আনিস গ্ররুতর অসুস্থ : লন্ডনে চিকিৎসাধীন

About author

You might also like

আইন-আদালত ০ Comments

তথ্যপ্রযুক্তি মামলায় ক্রিকেটার সানির বিরুদ্ধে চার্জশিট

৬ এপ্রিল ২০১৭ (গ্লোবটুডেবিডি):  তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনে দায়ের করা মামলায় জাতীয় দলের ক্রিকেটার আরাফাত সানিকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দিয়েছে পুলিশ। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মোহম্মদপুর থানার এসআই মো.

আইন-আদালত ০ Comments

৬ মাস সময় পেল বিজিএমইএ

ঢাকা ১১ মার্চ ২০১৭ (গ্লোবটুডেবিডি): তৈরি পোশাক কারখানা মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএ ভবন ছয় মাসের মধ্যে ভেঙে ফেলার নির্দেশ দিয়েছেন আপিল বিভাগ। বিজিএমইএ কর্তৃপক্ষের এক আবেদনের শুনানি নিয়ে প্রধান বিচারপতি এসকে

আইন-আদালত ০ Comments

সাঁওতালপল্লিতে আগুনের ঘটনায় পুলিশ জড়িত: আদেশ ৭ ফেব্রুয়ারি

৩১ জানুয়ারি ২০১৭ (গ্লোবটুডেবিডি): গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে সাঁওতালপল্লিতে আগুন দেয়ার ঘটনায় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কিছু সদস্য সরাসরি জড়িত মর্মে হাইকোর্টে দাখিল করা প্রতিবেদনের ওপর আদেশের জন্য ৭ ফেব্রুয়ারি দিন ধার্য করা

০ Comments

No Comments Yet!

You can be first to comment this post!

Leave a Reply