হজযাত্রীদের সাথে প্রতারণায় এজেন্সি মালিকেরা

হজযাত্রীদের সাথে প্রতারণায় এজেন্সি মালিকেরা

২৩ আগস্ট ২০১৭ (গ্লোবটুডেবিডি): নোয়াখালীর বয়োবৃদ্ধ শামসুল হক দু’বছর আগে হজ করেন। এবার তিনি স্ত্রীর মাহরাম হিসেবে হজ করতে চান। এজন্য বেসরকারি এজেন্সি হাজী এয়ার মিডিয়ার সাথে চুক্তিবদ্ধ হন। শামসুল হকের ভিসা হয়েছে। কিন্তু তার স্ত্রীর এখনো ভিসা হয়নি। শামসুল হক কান্না জড়িত কণ্ঠে জানান, গত চার দিন ধরে তিনি হজ ক্যাম্পে রয়েছেন। কিন্তু ভিসা না হওয়ায় ক্যাম্পে স্ত্রীর থাকার ব্যবস্থা না থাকায় তাকে একটি হোটেলে থাকতে হচ্ছে। তিনি বলেন, এজেন্সি প্রতিদিন বলছে এই হচ্ছে, হবে। কিন্তু গত চার দিনেও ভিসা হয়নি। হজে যেতে পারব কি না জানি না।

খুলনার দৌলতপুর থেকে হজ ক্যাম্পে এসেছেন শেখ অলিয়ার রহমান। তিনি জানান, গত ২০ আগস্ট আমি, আমার ভাই এবং আমার স্ত্রী ইমিগ্রেশনে দাঁড়াই। কিন্তু তখন জানতে পারি আমার এবং ভাইয়ের ভিসা হলেও আমার স্ত্রীর হয়নি। এজেন্সি মালিক বলছে আপনারা দু’জন হজে চলে যান। আপনার স্ত্রীকে পরে পাঠাচ্ছি। কিন্তু আমার স্ত্রী মাহরাম ছেড়ে কিভাবে যাবে? এজন্য আমরা ইমিগ্রেশন থেকে ফিরে এসেছি। গত তিন দিনেও আমার স্ত্রী ভিসা হয়নি। এখন আমাদের এজেন্সি এমএম টাভেলসের মালিক সৈয়দ জাহিদ ইমাম বলছেন, ২৪ আগস্ট আমার স্ত্রীর ভিসা ও ফ্লাইট হবে। কিন্তু আমাদের বিশ্বাস হচ্ছে না। অলিয়ার রহমান বলেন, এ রকম সমস্যা শুধু আমার একার নয়, অনেকেরই এ সমস্যা হয়েছে।

গতকাল রাজধানীর আশকোনা হজ ক্যাম্পে গিয়ে দেখা যায় হজযাত্রীদের এ রকম অসংখ্য বিড়ম্বনার চিত্র। পিরোজপুর ইন্দুরকানির সেউতিবাড়ীয় গ্রামের আব্দুল খালেক তালুকদার গত বছর হজের প্রাক-নিবন্ধন করেন। কিন্তু আর্থিক কারণে গত বছর হজে যেতে পারেননি। এ বছর তিনি মিরপুর-১০ এর সানজিদ ট্রাভেলস ইন্টারন্যাশনাল (০১২৯) থেকে নিবন্ধন করেন। তিনি জানান, এজেন্সির মালিক শামসুল আলম ও খুলনার এজেন্ট শফিকুল ইসলামের কাছে হজ বাবদ তিন লাখ টাকা জমা দিই। গত ১০ আগস্ট হজ অ্যাপসে ঢুকে জানতে পারি হজের নিবন্ধন ঠিক আছে। তাদের সাথে যোগাযোগ করলে জানায় ২২ আগস্ট ফ্লাইট। কিন্তু ১২ আগস্ট হজ অ্যাপসে ঢুকলে দেখতে পাই হজ এজেন্সি কর্তৃক আপনার নিবন্ধন বাতিল করা হয়েছে। হজ অফিসে যোগাযোগ করে জানতে পারি এজেন্সি মালিক বেশি টাকা নিয়ে রিপ্লেসমেন্ট করে অন্য হাজীকে আমার স্থানে ঢুকিয়েছেন। আব্দুল খালেক তালুকদার বলেন, এজন্সির সাথে কথা বললে তারা নানা প্রতারণামূলক কথা বলছে। এমনকি আমরা যেন মন্ত্রণালয়কে না জানাই সেজন্য হুমকিও দিচ্ছে। এ প্রসঙ্গে সানজিদ ট্রাভেলস ইন্টারন্যাশনালের মালিক শামসুল আলম নয়া দিগন্তকে বলেন, শফিকুল ইসলাম মধ্যস্বত্বভোগী। সে আমাকে ৪০ জন হজযাত্রীর জন্য মাত্র ৫৪ লাখ টাকা জমা দিয়েছে। এখন সে কোনো টাকা দিচ্ছে না। তাকে খুঁজেও পাওয়া যাচ্ছে না। শফিকুল ছয়জনকে রিপ্লেসমেন্ট করেছে।

এ দিকে হজ ক্যাম্পের কয়েকজন হজযাত্রী অভিযোগ করেন, নিবিড় নামে একটি এজেন্সি সুস্থ হজযাত্রীকে অসুস্থ দেখিয়ে অন্য ব্যক্তিকে রিপ্লেসমেন্ট করে হজে পাঠিয়েছে। এ রকম প্রায় ৪০ জনকে ওই এজেন্সি হজে পাঠিয়েছে বলে তারা জানান। ফলে এখন তারা হজ ক্যাম্পে এসেও হজে যেতে না পারায় কান্নায় ভেঙে পড়েন।

এ ব্যাপারে বেসরকারি হজ এজেন্সি মালিকদের সংগঠন হাবের মহাসচিব শাহাদাত হোসেন তসলিম বলেন, রিপ্লেসমেন্টের বিষয়টি হজ অফিস দেখে থাকে। রিপ্লেসমেন্টের আবেদনে পূর্বের হজযাত্রীর আইডিসহ সব তথ্য দেয়া থাকে। হজ অফিসের দায়িত্ব তদন্ত করে তাদের অবস্থা জেনেই রিপ্লেসমেন্ট করার আবেদন গ্রহণ করা। কিন্তু তা না করে থাকলে তার দায়ভার হজ অফিসের।

এর মধ্যে রাজশাহী থেকে অভিযোগ জানাতে সস্ত্রীক হজ ক্যাম্পে এসেছেন আতাউর রহমান। তিনি ইকো এভিয়েশন অ্যান্ড টুরিজমকে ২১ জন হজযাত্রী সরবরাহ করেন ২০১৫ সালে। হাজীপ্রতি তিনি তখন এজেন্সিকে দিয়েছিলেন ২ লাখ ১০ হাজার টাকা করে। গত বছরও তাদের হজে পাঠাতে পারেননি। এ বছর আরো ৩০ হাজার টাকা করে এজেন্সিকে দিয়েছেন। ওই হজযাত্রীদের ভিসা হয়েছে। কিন্তু এজেন্সি মালিক তাদের হজে পাঠাচ্ছেন না। এ কারণে হজযাত্রীদের স্বজনরা তাদের বাড়িতে এসে ব্যাপক ভাঙচুর করেছেন বলে তিনি জানান।

এ ব্যাপারে হাব মহাসচিব বলেন, আতাউর রহমান একজন মধ্যস্বত্বভোগী। এ ধরনের মধ্যস্বত্বভোগীদের কারণেই হজে সমস্যা হচ্ছে। যারা সরাসরি এজেন্সিকে টাকা দিয়েছেন তাদের কোনো সমস্যা হচ্ছে না। তিনি বলেন, হজে যেসব সমস্যা হচ্ছে তার জন্য হজ নীতিমালায় ব্যাপক সংস্কার প্রয়োজন। মধ্যস্বত্বভোগীদের বাদ দিয়ে কিভাবে হাজীদের সংগ্রহ করা যায়, ফ্লাইট, বাড়ি ভাড়াসহ অন্যান্য সমস্যা কিভাবে সমাধান করা যায় সে ব্যাপারে হাব ধর্ম মন্ত্রণালকে একটি সুপারিশ দেবে।

এ দিকে গতকাল হজ অফিস সূত্রে জানা যায়, এখনো নিবন্ধিত ১০০৫ জন হজযাত্রীর ভিসা হয়নি। ফলে এসব হজযাত্রী সৌদি আরবে যেতে পারছেন না। ভিসা আবেদন জমা না দেয়া প্রসঙ্গে হজ অফিসের পরিচালক সাইফুল ইসলাম বলেন, নানা কারণে ভিসা আবেদন জমা নাও পড়তে পারে। হজযাত্রীর অসুস্থতা, আর্থিক সঙ্কটসহ বিভিন্ন সমস্যার কারণে নিজে থেকেই হজে নাও যেতে পারেন। তবে কোনো যাত্রী যদি অভিযোগ করেন, তিনি টাকা জমা দেয়ার পরও এজেন্সি ভিসার আবেদন জমা দেয়নি, তবে সেই এজেন্সির বিরুদ্ধে আমরা ব্যবস্থা নেবো।

গতকাল সকাল ৯টা পর্যন্ত সৌদি আরবে পৌঁছেছেন ৯৪ হাজার ৪১০ জন হজযাত্রী। তখনো হজযাত্রী যেতে বাকি ৩১,৭৮৩ জন। তবে গতকাল দিনের বাকি সময়ে আরো তিন হাজার হজযাত্রীর যাওয়ার কথা। গতকাল বাংলাদেশ বিমান ৮টি ফ্লাইট এবং সৌদি এয়ারলাইন্স চারটি ফ্লাইট পরিচালনা করে। এতে মোট হজযাত্রী যায় চার হাজার ৮৫২ জন। তবে বিমান ফ্লাইট বাড়ালেও ৩০টি বেশি ফ্লাইট বাতিলের কারণে প্রায় সাড়ে ৪ হাজার হজযাত্রীর যাত্রা অনিশ্চিত হয়ে পড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। হজ পরিচালক সাইফুল ইসলাম বলেন, শুরুর দিকে ফ্লাইট বাতিলের কারণে প্রায় সাড়ে চার হাজার হজযাত্রীর ক্যাপাসিটি লস হয়েছে। বিমান ও সৌদি অ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সকে আমরা অনুরোধ জানিয়েছি, তারা যেন অতিরিক্ত ফ্লাইট পরিচালনা করে। সেজন্য তারা সৌদি সরকারের কাছে আবেদনও জমা দিয়েছে। আশা করছি, দুই দিনের মধ্যে অনুমতি পাওয়া যাবে।

হজ এজন্সিগুলোর বিমান থেকে কী পরিমাণ টিকিট কিনেছে, তা জানতে চেয়ে চিঠি দিয়েছে ধর্ম মন্ত্রণালয়। হজ এজন্সি ও সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান থেকে নিবন্ধিত হজযাত্রীদের মধ্যে কোন হজ এজন্সি, কোন তারিখে, কোন ফ্লাইটে কতজনের টিকিট বুকিং বা কনফার্ম করেছে, তার তথ্য পাঠাতে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সহকারী সচিব এস এম মনিরুজ্জামান স্বাক্ষরিত চিঠিতে জানতে চাওয়া হয়েছে।

সূত্র জানায়, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স ২২ আগস্ট থেকে ২৬ আগস্ট ৩৮টি হজ ফ্লাইট পরিচালনা করবে। যদিও ২৮ তারিখ পর্যন্ত ফ্লাইট পরিচালনার জন্য সৌদি আরবের কাছে আবেদন করলেও অনুমতি পায়নি বিমান। ২৬ আগস্ট পর্যন্ত ফ্লাইট পরিচালনা করলে বিমানের পক্ষে ১ হাজার ৫০০ হজযাত্রীকে পরবহন করা সম্ভব হবে না। অন্য দিকে সৌদি অ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্স ২২ আগস্ট থেকে ২৭ আগস্ট পর্যন্ত ৩৪টি হজ ফ্লাইট পরিচালনা করবে। আরো সাতটি ফ্লাইট পরিচালনা জন্য আবেদন করেছে এয়ারলাইন্সটি।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) শাকিল মেরাজ বলেন, বিমান সাধ্যমতো চেষ্টা করছে সব হজযাত্রীকে সৌদি আরবে পৌঁছাতে। হজফ্লাইট ঠিক রাখতে নিয়মিত বেশ কিছু ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছে। সব যাত্রী পরিবহনের জন্য সৌদি আরবের কাছে অতিরিক্ত ফ্লাইট পরিচালনার অনুমতি চাওয়া হয়েছে।

Share Button
Previous আফ্রিদির ৪২ বলে সেঞ্চুরি
Next ডাকাতের ধারালো অস্ত্রে যুবক নিহত, গুলিবিদ্ধ ১

You might also like

০ Comments

No Comments Yet!

You can be first to comment this post!

Leave a Reply