নেশার টাকার জন্য সাত বন্ধুকে দিয়ে স্ত্রীকে গণধর্ষণ

নেশার টাকার জন্য সাত বন্ধুকে দিয়ে স্ত্রীকে গণধর্ষণ

১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৭ (গ্লোবটুডেবিডি): নেশার টাকা জোগাড় করতে সাত বন্ধুকে দিয়ে নিজের স্ত্রীকে গণধর্ষণ করানোর অভিযোগ উঠেছে ভারতের লুধিয়ানার প্রত্যন্ত গ্রাম ঢাকায়।

এরই মধ্যে অভিযুক্তদের গ্রেফতার করে তদন্ত শুরু করেছে স্থানীয় পুলিশ। খবর জি নিউজের।

জি নিউজের খবরে বলা হয়, লুধিয়ানার ঢাকা গ্রামের বাসিন্দা ওই ব্যক্তি দীর্ঘদিন ধরেই নেশায় আসক্ত। একটা সময়ে দিনমজুরির কাজ করলেও, এখন সেরকমভাবে কোনো কাজ করে না। অথচ, দিনরাত নেশায় বুঁদ হয়ে থাকে।

কিন্তু নেশার টাকা না থাকায় তা জোগাড় করতে বন্ধুদের এক শর্তে রাজি হয়ে যায় সে। এক রাতে ২২ বছরের স্ত্রী ঘরে একা থাকাকালীন ওই ব্যক্তির নেশার সঙ্গী সাত বন্ধুকে ঘরে ঢুকিয়ে নিজে বাইরে থেকে দরজা বন্ধ করে দেয়।

এর পর সাতজন মিলে ওই মহিলাকে গণধর্ষণ করে বলে অভিযোগ। একইসঙ্গে গোটা ঘটনার ভিডিও মোবাইলে তুলে রাখে তারা।

এরপর থেকে ওই অভিযুক্ত সাতজন নির্যাতিতার স্বামীকে ব্ল্যাকমেইল করতে থাকে।

নির্যাতিতার অভিযোগ, একবার নয়, একাধিকবার এইভাবে নির্যাতনের শিকার হয়েছিলেন তিনি। অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে অবশেষে লুধিয়ানা পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করেন তিনি। গ্রেফতার করা হয় অভিযুক্তদের।

ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৭৬ ধারা অনুসারে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। কিন্তু এখনও আতংক কাটিয়ে উঠতে পারেননি নির্যাতিতা। শরীরের থেকেও গভীর ক্ষত তৈরি হয়েছে মনে। নিজের ছোট্ট মেয়েকে দেখেই সেই ক্ষতে প্রলেপ লাগিয়ে স্বামী ও তার বন্ধুদের কড়া শাস্তির দাবিতে লড়াই চালাচ্ছেন তিনি।

Please follow and like us:
Previous একদিনেই বিক্রি ২ কোটি ডিম!
Next ৯০তম অস্কার : বাংলাদেশি চলচ্চিত্র আহ্বান

You might also like

০ Comments

No Comments Yet!

You can be first to comment this post!

Leave a Reply