গরমের খাবার

গরমের খাবার

১০ মে ২০১৮ (গ্লোবটুডেবিডি): ঋতু পরিবর্তনের এই সময়ে অল্পতেই অনেকেরই নানা ধরনের অসুখ হয়ে থাকে। তাই এ সময় খাবার খেতে হবে সুষম ও পরিমিত। ডায়াবেটিস এবং অন্যান্য রোগী যারা আছেন, তাদের জন্য খাবারের ব্যাপারটি খুব গুরুত্বপূর্ণ।
গরমে বাইরের তেলে ভাজা খাবার যতটা সম্ভব এড়িয়ে চলা উচিত। এর পরিবর্তে নাস্তা হিসেবে মৌসুমি ফল বা সালাদ রাখা যায়। গরমের সময় পানিবাহিত রোগের প্রকোপ বেড়ে যায়। তাই রাস্তায় পাওয়া শরবত বা আখের রস না খেয়ে বাইরে বের হওয়ার সময় ঘর থেকে পরিষ্কার পানি দিয়ে শরবত বানিয়ে সাথে রাখা ভালো। গরমে ঘামের সাথে শরীরে পানি ও ইলেকট্রলাইটের ঘাটতি দেখা যায়। তাই পানির পাশাপাশি ওরস্যালাইন বা ডাবের পানি খুবই উপকারী। এ ছাড়া, প্রতিদিন ৭-৮ বছরের বাচ্চাদের ৫-৬ গ্লাস পানি এবং বড়দের ১০-১২ গ্লাস পানি খাওয়ার অভ্যাস করতে হবে। গরমে ফুড পয়জনিং বেশি হয়, তাই এ সময় প্রাণিজ প্রোটিনের পরিবর্তে প্ল্যান্ট প্রোটিন যেমন- নানা রকম ডাল, চীনাবাদাম, কাজু বাদামসহ বিভিন্ন ধরনের শাকসবজি খাওয়া ভালো। এ ছাড়া, গরমে নানা ফলমূল, তরমুজ, আম, কাঁঠাল, লিচু, আনারস, কলা, জাম্বুরা, পেঁপেসহ বিভিন্ন ফলমূল বেশি করে খাওয়া উচিত। এতে শরীরের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রিত থাকে এবং প্রয়োজনীয় পুষ্টির চাহিদা পূরণ হয়।
তবে গরমে খাবার যাই হোক না কেন, তা খেতে হবে খুব হিসেব করে ও নিয়ম মেনে। গরমে খাবারের ব্যাপারে সচেতন থাকলে শরীর রোগমুক্ত সুস্থ ও সবল রাখা সম্ভব।
Share Button
Previous গরম মশলার গুণ
Next ভাই সেজে স্ত্রীর বিয়ে দিলো স্বামী

You might also like

০ Comments

No Comments Yet!

You can be first to comment this post!

Leave a Reply